প্রেস ক্লাবের সাইনবোর্ড ভেঙে নিয়ে গেলেন অধ্যক্ষ

0
118
ছবিটি সংগৃহীত

পাবনা প্রতিনিধি

পাবনার ফরিদপুরে প্রেস ক্লাবের সাইনবোর্ড ভেঙ্গে নিয়েগেলে একটি কলেজের অধ্যক্ষ। ওই অধ্যক্ষ অবশ্য বলেছেন তিনি চাপে পরে কাজটি করেছেন।

শুক্রবার সকাল ১০টার দিকে ফরিদপুর সরকারি মোহাম্মদ ইয়াছিন ডিগ্রি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ আলতাব হোসেনের নেতৃত্বে ফরিদপুর প্রেস ক্লাবের সাইনবোর্ড ভাংচুর করা হয়। অধ্যক্ষের বাহিনী ভাংচুর করা সাইনবোর্ডটি নিয়ে যায়।

ফরিদপুর প্রেস ক্লাবের সভাপতি আব্দুল হাফিজ জানান, প্রেস ক্লাবের জন্য আইনগত প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে কলেজের পাশে ওই জমি ইজারা নেওয়া হয়। কিন্তু ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ওই জায়গা নিজেদের দাবি করেন। কিন্তু তিনি কোনো কাগজপত্র দেখাতে পারেননি। এক পর্যায়ে শুক্রবার সকাল ১০টার দিকে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ তার লোকজন নিয়ে প্রেস ক্লাবের সাইনবোর্ড ভাংচুর করার পর তা নিয়ে চলে যান।

এ ব্যাপারে কলেজ পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি উপজেলা নির্বাহী অফিসার আহম্মদ আলী বলেন, জায়গাটি কলেজের না। ফরিদপুর প্রেস ক্লাবের নামে বরাদ্দ দেওয়ার জন্য সুপারিশ করা হয়েছে।

উপজেলা চেয়ারম্যান মো. গোলাম হোসেন গোলাপ বলেন, প্রেস ক্লাবের সাইনবোর্ড ভাংচুর করা ঠিক হয়নি।

ফরিদপুর পৌর মেয়র খ ম কামরুজ্জামান মাজেদ বলেন, ভাংচুরের বিষয়টি দুঃখজনক এবং তা করা সঠিক হয়নি।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান খলিলুর রহমান সরকার বলেন, প্রেস ক্লাবের জায়গা অত্যাবশ্যক। সাইনবোর্ড ভাংচুরের অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটানো ঠিক হয়নি।

এ ব্যাপারে ফরিদপুর থানার ওসি মো. মাসুদ রানা বলেন, অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছি। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এ ব্যাপারে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ আলতাব হোসেনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, চাপে পড়ে তিনি কাজটি করেছেন। তবে কার চাপে তিনি কাজটি করেছেন- সেই বিষয়ে তিনি কিছু বলেননি।