জাতিসংঘ বন্যার্তদের জন্য ৫০ লাখ ডলার দিচ্ছে

15
প্রতিকী ছবি

দ্রোহ আন্তর্জাতিক ডেস্ক

জাতিসংঘ বৃহত্তর সিলেট অঞ্চলের বন্যাদুর্গত মানুষদের জন্য ৫০ লাখ ডলার সহায়তার ঘোষণা দিয়েছে।

সংস্থার ঢাকা কার্যালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বৃহস্পতিবার জানানো হয়, জাতিসংঘের কেন্দ্রীয় জরুরি সাড়াদান তহবিল (সিইআএফ) থেকে দেওয়া হচ্ছে এই সহায়তা।

এর আগে জাতিসংঘের মানবিকতা বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারি ও জরুরি ত্রাণ সমন্বয়ক মার্টিন গ্রিফিথসের প থেকে ৫০ লাখ ডলার বরাদ্দের ঘোষণা আসে।

জাতিসংঘের ঢাকা দলের তত্ত¡াবধানে বন্যার্তদের জন্য ত্রাণ তহবিল সংগ্রহের যে আবেদন জানানো হয়েছে, তার আওতায় আসবে এই অর্থ।

ওই আবেদনে বলা হয়, বাংলাদেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চলে এবারের বন্যায় ৭২ লাখ মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন। যাদের মধ্যে অর্ধেকের বেশি মানুষের মানবিক সহায়তার জন্য আনুমানিক ৫ কোটি ৮৪ লাখ ডলার প্রয়োজন।

ওই আবেদনের আওতায় ১ কোটি ২০ লাখ ডলারের তহবিল সংগ্রহ হওয়ার কথা বৃহস্পতিবারের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে জাতিসংঘ।

ঢাকায় জাতিসংঘের আবাসিক সমন্বয়ক গোয়েন লুইসের নেতৃত্বে জাতিসংঘের একটি প্রতিনিধি দল এরই মধ্যে সিলেট অঞ্চল ঘুরে এসেছেন।

আরো পড়ুন – ঝিনাইদহে পানি সংকটে আমন আবাদ নিয়ে শঙ্কা

সেখানে বন্যার করুণ চিত্র তুলে ধরতে গিয়ে আবাসিক সমন্বয়কের একটি বক্তব্য উদ্ধৃত করে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, এ অঞ্চলে এবারের বন্যার মাত্রা স্মরণকালের মধ্যে সবচেয়ে তীব্র। অনেক পরিবার বাস্তবিক অর্থেই সবকিছু হারিয়েছে।

অনেকে এখনো আশ্রয়কেন্দ্রে বাস করছেন। কেননা, বন্যার পানি নামছে খুব আস্তে আস্তে, আর তাদের বাড়িঘর একেবারে ধ্বংস হয়ে গেছে। সরকারের জরুরি সাড়াদান কার্যক্রমে আমাদের সহায়তার হাত বাড়ানো খুবই জরুরি।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সহায়তা কার্যক্রমে সরকারকে সহায়তা করার পাশাপাশি তিগ্রস্ত পরিবারগুলোর জন্য খাদ্য, সুপেয় পানি, নগদ অর্থ, জরুরি ওষুধ, পানি বিশুদ্ধকরণ ট্যাবলেট, হাইজিন কিটসহ বিভিন্ন সহায়তা পৌঁছে দিচ্ছে জাতিসংঘ।

ইউনিসেফ, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা, বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি, ইউএনএইচসিআর এবং আইওএমসহ বিভিন্ন সংস্থার পৃথক সহায়তা কার্যক্রমের কথাও তুলে ধরা হয় সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে।

Print Friendly, PDF & Email