করোনা ভীতিতে স্বজনরা পালালেও পাশে দাঁড়াল পুলিশ

0
17
jessor-Fro-21-p-23
সংগৃহিত ছবি

যশোর প্রতিনিধি

পৃথিবীটা বড্ড আজব। কল্পনা মাঝে মাঝে বাস্তবতাকে হার মানায়। বিপদে পড়লে চেনা যায় আপনজন কতটা কাছের বা দুরের। কাছের মনুষগুলো চোখের পলকে বদলে যায়, করোনা পজিটিভের খবর শুনে। তখনই পাশে এসে দাঁড়ায় বাংলাদেশ পুলিশ।

যশোর এর ব্যাংকার শামীম আহম্মেদের জীবনে এমনি ঘটনা ঘটেছে। ভালোই চলছিল তার জীবন ও সংসার। কিন্তু করোনা মহামারিতে তিনি হঠাৎ করোনা পজিটিভ হয়ে পড়েন। তখনই বুঝতে পারেন বাস্তবতা কত কঠিন।

আপনজন সবাই তার থেকে মুখ ফিরিয়ে নেন। ঘরে খাবার নেই, বাইরে বেড় হয়ে খাবার কেনার মতও কোন অবস্থা ছিলনা ব্যাংকারের। এমন পরিস্থিতিতে খুবই খারাপ সময় পার করছিলেন । এমন অবস্থায় তিনি যশোর জেলা পুলিশের ফেসবুক পেজ থেকে নম্বর নিয়ে ফোন দেন পুলিশকে।

পরবর্তীতে যশোর জেলার পুলিশ সুপার মুহাম্মদ আশরাফ হোসেনের নেতৃত্বে রবিবার শামীম আহম্মেদের বাসায় পুলিশ পৌঁছে দেয় বিভিন্ন ফল ও খাবার। এ তথ্য নিশ্চিত করেছে যশোর জেলা পুলিশের মিডিয়া সেল ।

যশোরের পুলিশ মিডিয়া সেলের ইনচার্জ সোহেল মাতুব্বর বলেন, করোনা রোগী শামীম আহম্মেদ শহরের বেজপাড়া তালতলা এলাকার বাসিন্দা। তার এমন পরিস্থিতির কথা জানতে পেরে পুলিশ সুপারের নির্দেশে তার বাসায় খাদ্যসামগ্রী উপহার হিসেবে পাঠানো হয়েছে।