ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবি হিউম্যান রাইটসের

0
48

দ্রোহ অনলাইন ডেস্ক

সরকার ও রাজনৈতিক নেতাদের সমালোচনাকারী অ্যাক্টিভিস্ট, সাংবাদিক এবং অন্যান্যদের হয়রানিমূলক গ্রেফতার করে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন ব্যবহার করা হচ্ছে বলে নিউইয়র্কভিত্তিক আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা হিউম্যান রাইটস অভিযোগ করেছে।

সরকার আইনের শাসনকে অবজ্ঞা করছে। যাকেই সমালোচনাকারী মনে করছে, তাকেই গ্রেপ্তার করছে বলে বুধবার এইচআরডব্লিউ’র এশিয়া অঞ্চলের পরিচালক ব্রাড অ্যাডামস এমনই অভিযোগ করেছেন।

কোভিড-১৯ এর বিস্তার রোধে কারাগারে বন্দির সংখ্যা কমানোর পরিবর্তে উল্টো সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সামান্য মন্তব্যের দায়ে অনেককে আটক করে রেখেছে বলেও মন্তব্য করেন ব্রাড অ্যাডামস ।

এইচআরডব্লিউ বলছে, ২৮ জুন সাংবাদিক শফিকুল ইসলাম কাজলের জামিন আবেদন খারিজ করে তাকে রিমান্ড দেওয়া হয়েছে। রিমান্ডে তদন্তের অংশ হিসেবে আটককৃতদের পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়, যেখানে তাদের ওপর নির্যাতন চালানোর অভিযোগ রয়েছে। রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের ক্ষেত্রে হাইকোর্ট প্রদত্ত নির্দেশনা রয়েছে। কিন্তু এ নির্দেশনা মানার কোনো প্রমাণ নেই।

আরও পড়ুন দেশে করোনায় মৃত্যু ৪১, নতুন শনাক্ত ৩৭৭৫

এ ছাড়াও, সম্প্রতি বাংলাদেশে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে কার্টুনিস্ট আহমেদ কবির কিশোর, লেখক মুশতাক আহমেদ, অ্যাক্টিভিস্ট দিদারুল ভূঁইয়া, ব্যবসায়ী মিনহাজ মান্নান ইমন, প্রকাশক নূর মোহাম্মদ ও বাউল শিল্পী শরিয়ত সরকারকে গ্রেপ্তারের বিষয়ে উদ্বেগ জানিয়েছে এইচআরডব্লিউ।

সংস্থাটি বাকস্বাধীনতা রক্ষায় আইনটি সংশোধন বা বাতিলের জন্য সরকার প্রধানকে উদ্যোগ নেওয়া উচিত বলেও মত দিয়েছে।