খুলনা বিভাগে করোনা রোগীর সংখ্যা সাড়ে ১০ হাজার ছাড়াল

11
Corona-compressed
করোনার প্রতিকী ছবি।

দ্রোহ অনলাইন ডেস্ক

খুলনা বিভাগে প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস রোগীর সংখ্যা সাড়ে ১০ হাজার ছাড়িয়ে গেল। এ বিভাগে সর্ব প্রথম রোগী শনাক্ত হবার পরে ১২৮তম দিনে রোগীর সংখ্যা সাড়ে ১০ হাজার ছাড়িয়ে গেল। শুধু খুলনা জেলায় আক্রান্তের সংখ্যা ৪ হাজার ছাড়িয়েছে।

২৪ ঘণ্টার হিসাব মতে খুলনা বিভাগে নতুন করে ২৩৪ জন প্রাণঘাতী করোনা রোগে সংক্রমিত হয়েছেন। এ অবধি এই বিভাগের ১০ জেলায় রোগীর সংখ্যা ১০ হাজার ৬৯৫। শুধুমাত্র মাগুরা ও মেহেরপুর বাদে বাকী আট জেলায় রোগী সংখ্যা ছাড়িয়ে গেছে পাঁচশত।

বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সূত্র থেকে জানা গেছে, বিভাগের ১০ জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় ৮ জন মারা যাওয়ায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৯৮ জনে। খুলনা বিভাগের মধ্যে চুয়াডাঙ্গায় প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয় মার্চের ১৯ তারিখে। পরবর্তী ৭৩ দিনে শনাক্তের সংখ্যা ছাড়ায় ৫০০।

বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সূত্র জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন শনাক্ত হওয়া ২৩৪ জনের মধ্যে খুলনা জেলায় ৬০ জন, বাগেরহাটে ৬ জন, চুয়াডাঙ্গায় ২০ জন, যশোরে ৬৩ জন, ঝিনাইদহ ৩৯, কুষ্টিয়া ২৭ জন, মাগুরায় ৮ জন, মেহেরপুর ৫ জন এবং সাতক্ষীরা ৬ জন রয়েছেন। এই সময়ে নড়াইলে নতুন করে কেউ শনাক্ত হননি।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের দেওয়া হিসাবে, বিভাগে করোনা ভাইরাসে সংক্রমিত ১০ হাজার ৬৯৫ জনের মধ্যে ৪ হাজার ১০ জনই খুলনা জেলার। বিভাগের মোট রোগীর ৩৮ শতাংশ খুলনার। এ ছাড়া বাগেরহাটে ৫৪১ জন, চুয়াডাঙ্গায় ৫১১, যশোরে ১ হাজার ৬২৯, ঝিনাইদহে ৮০৯, কুষ্টিয়ায় ১ হাজার ৩৮০, মাগুরায় ৩৮৬, মেহেরপুরে ১৫১, নড়াইলে ৬২৫ ও সাতক্ষীরায় ৬৫৩ জন করোনা ভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছেন। বিভাগে করোনা রোগে মৃতের সংখ্যা এখন ১৯৮। এর মধ্যে খুলনায় সবচেয়ে বেশি ৬৪ জন মারা গেছেন। এ ছাড়া কুষ্টিয়ায় ৩০ জন, যশোরে ২৩ জন, সাতক্ষীরায় ২০ জন, ঝিনাইদহে ১৬ জন, নড়াইলে ১১ জন, বাগেরহাটে ১০ জন, চুয়াডাঙ্গায় ৯ জন, মাগুরায় ৮ জন, মেহেরপুরে ৭ জন মারা গেছেন।

আরও দেখুন- অনলাইন ক্লাস-কুঁজো বুড়ির গল্প (২)

Print Friendly, PDF & Email