পদ্মা-যমুনার মোহনায় ধরা পড়ছে বড় বড় মাছ

0
25
মোহনা থেকে ধরা পড়া বাঘর মাছ

রাজবাড়ি প্রতিনিধি

দৌলতদিয়া ফেরি ঘাটের কিছু দুরেই মমিন জেলের জালে ধরা পড়ে ৪৬ কেজি ওজনের একটি বাঘাইর মাছ। রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া ঘাট এলাকার পদ্মা-যমুনার মোহনায় প্রায় প্রতিদিনই জেলেদের জালে ধরা পড়ছে বড় বড় বিভিন্ন মাছ।

মঙ্গলবার সকালে দৌলতদিয়া রওশন মোল্লার আড়তে এক মণেরও বেশি ওজনের মাছটি নিয়ে আসলে সুমাইয়া মৎস্য আড়তের মৎস ব্যবসায়ী সোহেল মোল্লা ১ হাজার ৫০ টাকা কেজি দরে মাছটি কিনে নেন। তবে মাছটি এক নজর দেখার জন্য ভিড় করেন স্থানীয়রাসহ ফেরি ঘাটের সাধারণ যাত্রীরা।

মমিন হলদার বলেন, সোমবার রাত ১১টার দিকে নদীতে জাল ফেলি, রাত ২টার দিকে টেনে বড় আকারের বাঘাইর মাছটি ধরি। বর্তমানে নদীতে পানি কমতে শুর করেছে। এ কারণে ছোট বড় সব ধরনের মাছ এখন জেলেদের জালে ধরা পড়ছে।

আরও দেখুন-দ্রোহ-ফোক-ফেস্টিভ্যাল

তিনি আরও জানান, সোমবারও ফেরি ঘাটের কিছুটা দুরে পদ্মা ও যমুনা নদীর মোহনায় জেলেদের জালে ধরা পড়ে ৪৩ কেজি ওজনের একটি বাঘাইর মাছ। একইদিন সকালে দৌলতদিয়া ঘাটের দুলাল মন্ডলের আড়তে মাছটি বিক্রি করেন আনন্দ হলদার নামের এক জেলে। মাছটি আড়ত থেকে ১১৪০ টাকা কেজি দরে মোট ৪৯ হাজার ২০ টাকায় কিনে নেন দৌলতদিয়া ঘাটের শাকিল সোহান মৎস্য আড়তের মাছ ব্যবসায়ী শাজাহান শেখ।

এর আগের সপ্তাহে এই নদীর মোহনায় হযরত আলী নামে এক জেলের জালে ৩০ কেজি ওজনের বাঘাইর, সাধু হালদারের জালে ২৬ কেজি ও গোবিন্দ হলদারের জালে ২৫ কেজি ওজনের বাঘাইর, ফারুক হলদারের জালে ধরা পড়ে ২৭ কেজি ওজনের একটি পাঙ্গাস, শাহীন হলদারের জালে ২০ কেজি ওজনের পাঙ্গাস ধরা পড়ে।

আরও দেখুন–Droho-Online-English-Class || Part-3

এ প্রসঙ্গে গোয়ালন্দ উপজলো সিনিয়র মৎস্য র্কমর্কতা রেজাউল শরীফ জানান, সারা বছর নদীর এ এলাকায় বড় মাছ খুব বেশি ধরা পড়ে না। তবে বর্ষার প্রায় পুরো মৌসুম জুড়েই এ এলাকায় বড় বড় মাছ দেখা যায় এবং এ সময় ধরাও পড়ে বেশি।